মোট দেখেছে : 74
প্রসারিত করো ছোট করা পরবর্তীতে পড়ুন ছাপা

সাদেক হোসেন খোকার লাশ দেশে আনতে সহযোগিতা করবে সরকার

বিএনপি নেতা সাদেক হোসেন খোকার লাশ দেশে আনতে সহযোগিতা করা হবে বলে সরকারের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে।ক্যান্সারে আক্রান্ত হয়ে যুক্তরাষ্ট্রের একটি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় সোমবার মারা যান খোকা।


সড়ক পরিবহনমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের ও তথ্যমন্ত্রী হাছান মাহমুদ বিএনপির এই ভাইস চেয়ারম্যানের মৃত্যুতে শোক প্রকাশ করে তার মরদেহ দেশে আনার বিষয়ে সরকার সহযোগিতা করবে বলে জানিয়েছেন।


সোমবার দুপুরে মন্ত্রিসভা বৈঠক শেষে তথ্যমন্ত্রী সচিবালয়ে সাংবাদিকদের বলেন, “ঢাকার সাবেক মেয়র ও সংসদ সদস্য মৃত্যুবরণ করেছেন, আমি তার মৃত্যুতে গভীর শোক প্রকাশ করছি তার বিদেহি আত্মার শান্তি ও মাগফেরাত কামনা করছি।”


গত পাঁচ বছর ধরে যুক্তরাষ্ট্রে ছিলেন খোকা। এরমধ্যে দুর্নীতির মামলায় তার সাজাও হয়। বিদেশে থাকা অবস্থায় ২০১৭ সালে তার পাসপোর্টের মেয়াদ শেষ হয়ে যাওয়ার পর তিনি আর পাসপোর্ট পাননি বলে তার পরিবারের সদস্যরা জানিয়েছেন।


গুরুতর অসুস্থ অবস্থায় খোকা দেশে ফেরার ইচ্ছা প্রকাশ করে গিয়েছিলেন বলে বিএনপি নেতারা জানান।



খোকার লাশ দেশে আনা নিয়ে কোনো সমস্যা রয়েছে কি না- জানতে চাইলে হাছান মাহমুদ  বলেন, “তিনি তো ইচ্ছা প্রকাশ করেছিলেন, এজন্য পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় থেকে গতকালই বলা হয়েছিল।


“তাকে আনার জন্য সর্বাত্মক সহযোগিতা করা হচ্ছে ও হবে, সে ঘোষণা তো আগেই দেওয়া হয়েছিল।”


বিকালে সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে কৃষক লীগের সম্মেলনের প্রস্তুতিকাজ পরিদর্শনের সময় আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদেরও একই কথা জানান।


তিনি সাংবাদিকদের প্রশ্নে বলেন, “মৃত মানুষের সঙ্গে আমাদের কোনো কিছু নেই। তার মৃত্যুতে শোক প্রকাশ করছি এবং শোকসন্তপ্ত পরিবারের জন্য সমবেদনা জানাচ্ছি।


“তাকে যদি আনতে চান। ওখানে (নিউ ইয়র্ক) যদি সরকারিভাবে কোনো সমস্যা না হয়, আমাদের তো সমস্যা বা অসুবিধা নাই। আমাদের পররাষ্ট্রমন্ত্রী অলরেডি মিডিয়াকে বলেছেন বিষয়টি।”


“আমাদের পক্ষ থেকে কোনো অসহযোগিতা থাকবে না,” বলেন সড়ক পরিবহনমন্ত্রী কাদের।


নিউ ইয়র্কে বাংলাদেশের কন্সাল জেনারেল সাদিয়া ফয়জুননেসা  বলেন, “হাসপাতাল থেকে সাবেক মেয়র খোকার বড় ছেলে বিএনপি নেতা ইশরাক হোসেন আমাকে টেক্সট পাঠিয়েছেন তার বাবার মরদেহ বাংলাদেশে নেওয়ার অনুমতির জন্য। আমি ট্রাভেল ডকুমেন্ট দেব বলে তাকে জানিয়েছি। প্রচলিত রীতি অনুযায়ী হাসপাতাল থেকে মরদেহ ফিউনারেল হোমে নেয়ার পর এটি করা হয়।”


নিউ ইয়র্কের জ্যামাইকা জ্যামাইকা মুসলিম সেন্টারে সোমবার স্থানীয় সময় সন্ধ্যায় খোকার জানাজা অনুষ্ঠিত হবে। এরপর মঙ্গলবার রাতে লাশ নিয়ে তার স্ত্রী ও সন্তানরা ঢাকায় রওনা হবেন বলে যুক্তরাষ্ট্র বিএনপির নেতা মিল্টন ভূইয়া জানিয়েছেন।


খোকা অবিভক্ত ঢাকা সিটি করপোরেশনের মেয়র ছিলেন ২০০২ থেকে ২০১১ সাল পর্যন্ত।


খোকা ১৯৯১ সালে সূত্রাপুর-কোতোয়ালি আসন থেকে সংসদ সদস্য নির্বাচিত হয়েছিলেন। পরে ১৯৯৬ ও ২০০১ সালের নির্বাচনেও নির্বাচিত হন তিনি। খালেদা জিয়ার সরকারে মন্ত্রীর দায়িত্বও পালন করেছিলেন তিনি।

আরো দেখুন

আরও সংবাদ