মোট দেখেছে : 108
প্রসারিত করো ছোট করা পরবর্তীতে পড়ুন ছাপা

ফুলবাড়ীতে তালাবন্ধ ঘর থেকে যুবকের ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার

(দিনাজপুর)প্রতিনিধিঃ


দিনাজপুর ফুলবাড়ী উপজেলার শিবনগর ইউনিয়নের মধ্যসুলতানপুর গুচ্ছ গ্রামে তালাবন্ধ ঘরে রফিকুল ইসলাম(৩২) নামে ঝলন্ত এক যুবকের লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। নিহত রফিকুল ইসলাম ঐ এলাকার আব্দুস সাত্তার মন্ডলের দ্বিতীয় ছেলে। সে পেশায় একজন ভ্যান চালক ছিলেন।

নিহত রফিকুলের মেজ বোন আমেনা বেগম জানান, গতবুধবার (৩ ফেব্রুয়ারী) স্ত্রী, দু‘সন্তান সহ মধ্যপাড়ায় শ্যালকের বিয়েতে যোগ দিতে যান। আমাদের জানা মতে রফিকুল সেখানেই থাকার কথা। আজ (সোমবার) সকালে তার উঠানে রোপনকৃত সবজি গাছ দেখভাল করতে গেলে ঘরের দরজা দেখে সন্দেহ হলে ডাকা ডাকি করি। সাড়া শব্দ না পেয়ে দরজার ফুটো দিয়ে ভাইয়ের ঝুলন্ত লাশ দেখতে পাই।

সারেজমিনে দেখা যায়, ঘরের বর্গার সাথে নাইলনের নতুন দড়িতে ঝুলছে রফিকুল ইসলামের লাশ। গায়ে জ্যাকেট ও পায়ে সু পরা আছে। আশ্চার্র্যের বিষয় হল ঘরের বাইরে তখনও ঝুলছিল তালা। তালাবদ্ধ ঘরে লাশ উদ্ধার হওয়ায় এটি হত্যা নাকি আত্মহত্যা তা নিয়ে চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়েছে এলাকায়।

ফুলবাড়ী থানার অফিসার ইনচার্জ মোঃ ফখরুল ইসলাম ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে বলেন, খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পুলিশ ফোর্স পাঠানো হয়েছে। ফুলবাড়ী থানার উপপরিদর্শক(এসআই) রেজাউল করিম জানান, ‘লাশ উদ্ধারের পর ময়না তদন্তের জন্য এম আব্দুর রহিম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানোর প্রস্তুতি চলছে।

তবে এটি হত্যা বা আত্মহত্যা যা-ই হোক এলাকাবাসীর মতে এর নেপথ্যে রয়েছে সুদের দেনা। খোঁজ নিয়ে জানা যায়, নিহত রফিকুলের ফুফাত ভাই হামিদুল ইসলাম জনৈক সুদ কারবারীর কাছে সুদের টাকা নিয়ে পরিশোধ করতে না পারায় নির্যাতনের স্বীকার হন। তখন তাকে বাঁচাতে সুদের প্রায় ৭০ হাজার টাকা পরিশোধের জামিনদার হয় নিহত রফিকুল। এছাড়া তার নিজস্ব কিছু সুদের দেনা রয়েছে বলেও জানা যায়। দাদন ব্যবসায়ীদের অত্যাচারে অতিষ্ঠ হয়ে অনেক মানুষ এলাকা ছাড়া হয়েছে বলেও অভিযোগ করে এলাকাবাসী। এ ঘটনায় এলাকায় চাপা ক্ষোভ বিরাজ করছে।


আরো দেখুন

আরও সংবাদ